‘রোমিও’ পেলেন স্পিলবার্গ

0
227

একজন ‘রোমিও’ খোঁজা হচ্ছিল বেশ কয়েক মাস থেকে। ১৯৬১ সালের হলিউড মুভি ‘ওয়েস্ট সাইড স্টোরি’-র রিমেক করার কাজ হাতে নিয়েছেন ‘জুরাসিক পার্ক’-এর স্রষ্টা স্টিভেন স্পিলবার্গ। সে Ansel Elgortজন্যেই খোঁজ হচ্ছিল সেই রোমিওকে।

মিউজিক্যাল মুভি ‘ওয়েস্ট সাইড স্টোরি’-কে স্পিলবার্গ সাজাতে চাচ্ছেন ২১ শতকের ঘটনাপ্রবাহ দিয়ে। ‘রোমিও অ্যান্ড জুলিয়েট’-এর অনুপ্রেরণায় তৈরি এই ‘স্টোরি’ চলচ্চিত্রের কাহিনি আবর্তিত হয়েছে নিউইয়র্ক শহরের রাস্তায় বেড়ে উঠা ‘জেটস’ ও ‘শার্কস’ নামের দুই দল তরুণের শত্রুতাকে কেন্দ্র করে।

তাদের মধ্যে সংঘাত বেড়ে যায় যখন ‘জেটস’ দলের সাবেক সদস্য টনি নামের এক ছেলে হঠাৎ প্রেমে পড়ে মারিয়া নামের এক মেয়ের যে কিনা ‘শার্কস’ দলের এক নেতার বোন।

১৯৫৭ সালে ব্রডওয়েতে মঞ্চ নাটক হিসেবে ‘ওয়েস্ট সাইড স্টোরি’ খুব নাম করেছিলো। সেই নাটকে টনির নাম ভূমিকায় অভিনয় করে ল্যারি কার্ট হয়েছেন কিংবদন্তী। এরপর, ১৯৬১ সালে বড় পর্দায় যখন আসে সেই গল্পটি তখন সেখানে টনি হন রির্চাড বেমার। ‘সেরা ছবি’-র পুরস্কারসহ ১০টি অস্কার উঠেছিলো এর সংশ্লিষ্টদের ঝুলিতে।

এরপর, হাডসন নদী দিয়ে বয়ে গেছে অনেক পানি। সেই ক্লাসিককে নতুন শতাব্দীর দর্শকদের জন্যে নতুন করে তৈরি করতে চান ‘সেভিং প্রাইভেট রায়ান’-পরিচালক। এ সময়ের ঘটনা প্রবাহকে আকর্ষনীয় করে তুলে ধরতে তাই প্রয়োজন এ যুগের সঙ্গে যুৎসই একজন টনি। অবশেষে, সেই চরিত্রের জন্যে বেছে নেওয়া হয়েছে গোল্ডেন গ্লোব বিজয়ী ২৪ বছর বয়সী আনসেল এলগর্টকে। এবার তিনিই হবেন স্পিলবার্গের ‘রোমিও’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here